প্রকাশ : ২৪ ডিসেম্বর, ২০১৭ ০১:৫৮:০৩
গাইবান্ধায় কৃষি প্রণোদনা ও পুর্নবাসন সহায়তা প্রভাবশালীদের হাতে
বাংলাদেশ বাণী, গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি : সরকারের নিয়মনীতির তোয়াক্কা না করে গইবান্ধা জেলার সাত উপজেলায় অর্থের বিনিময় বন্যায় ক্ষতিগ্রস্থ কৃষকদের প্রণোদনা ও পুর্নবাসন সহায়তা ব্যবসায়ী ও প্রভাবশালী কৃষকদের দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে।
ফলে প্রকৃত ক্ষুদ্র ও প্রন্তিক কৃষকরা সরকারের ঐ সকল সুবিধা থেকে বঞ্চিত হয়েছে। এই ঘটনা বেশি ঘটেছে গাইবান্ধা সদর উপজেলায়। গাইবান্ধা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালকের কার্যালয় সুত্রে জানা যায় এবারের বন্যায় জেলায় ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকের সংখ্যা প্রায় ১ লাখ ৭৬ হাজার।

এর মধ্যে ক্ষুদ্র এবং প্রন্তিক কৃষকদের প্রণোদনা ও পুর্নবাসন ২ কোটি ৫৫ লাখ টাকা বরাদ্দ পাওয়া যায়। প্রণোদনের আওতায় ২১ হাজার ৯৩০ জন ও কৃষি পূর্ণবাসনে পাঁচ হাজার ৫০০ জন কৃষককে সহায়তা দেয়া হয়েছে। প্রত্যেক কৃষক ফসল ভিত্তিক  ভুট্টা বীজ দুই কেজি , গম ২০ কেজি, সরিষা এক কেজি, বোরো ধানের বীজ পাঁচ কেজি,মাসকলাই পাঁচ কেজি, গ্রীষ্ম মুগ পাঁচ কেজি, বিডি বেগুন বীজ ২০০ গ্রাম, লালশাক বীজ ১০০ গ্রাম, কপি পালং বীজ ১০০ গ্রাম,মুলাশাক বীজ ১০০ গ্রাম, মিষ্টি কুমড়া বীজ ৫০ গ্রাম, টিএসএপি সার ২০ কেজি ও এমপি সার ১০ কেজি পাবেন। একজন ক্ষুদ্র ও প্রন্তিক কৃষক ৭৫০ টাকা থেকে ১ এক হাজার ৩০০ টাকা পর্যন্ত সার ও বীজ সহায়তা পেয়েছে।

৫১ শতক থেকে ১৪৯ শতক পর্যন্ত  জমির মালিক কৃষককে ক্ষুদ্র ও ৫ শতক থেকে ৪৯ শতক পর্যন্ত জমির মালিক কৃষককে প্রন্তিক বলে। উপ-সহকারি কৃষি কর্মকর্তা ও উপজেলা কৃষি কর্মকর্তাগণ ক্ষুদ্র ও প্রন্তিক কৃষকদের সরকারি সহায়তা না দিয়ে ব্যবসায়ী ও প্রভাবশালী কৃষকদের কাছে এসব উপকরণ গুলোই বিক্রি করছে।

গাইবান্ধা সদর উপজেলার লক্ষ্মীপুর ইউনিয়নের লেংগাবাজার গ্রামের মৃত সাহাবউদ্দিনের পুত্র আব্দুল খালেক  বলেন আমার জমি চার বিঘা। তিন বিঘা জমির ফসল বন্যার পানিতে তলিয়ে যায়। চড়া সুদে টাকা নিয়ে বীজ ও সার কিনেছি। আমার মতো এলাকার অনেক চাষি কোন সরকারি সহায়তা পায়নি।

আবার অনেকে সরকারি সার ও বীজ তুলে ব্যবসায়ীদের কাছে বিক্রি করছে। সরকার ক্ষুদ্র ও প্রন্তিক কৃষকদের জন্য এসব উপকরণ বরাদ্দ থাকলেও মূলত পাচ্ছে প্রভাবশালী কৃষকরা। কয়েকজন ব্যবসায়ীকে কৃষি অফিসের  সামনে কৃষকদের কাছ থেকে সার ও বীজ বাজারের অর্ধেক দামে কিনতে দেখেছে।
ভিএইড রোডের ব্যবসাই বাবুল মুন্সি বলেন, যদি কেউ বীজ ও সার বিক্রি করতে আসেন তাহলে আমার কিনতে দোষ কোথায় ?

গাইবান্ধা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক আ কা ম.রুহুল আমিন বলেন ক্ষুদ্র ও প্রন্তিক কৃষকরা বীজ ও সার পাচ্ছেন। ব্যবসায়ী ও প্রভাবশালী কৃষকরা পাওয়ার কথা নয়। যদি এমনটা হয়ে থাকে তা হলে দোষিদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
সর্বশেষ সংবাদ
  • আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জঙ্গিবাদ কোন প্রভাব ফেলতে পারবে না : আইজিপি সরকারি চাকরিতে প্রবেশের সর্বোচ্চ বয়স ৩৫ বছর করার উদ্যোগ নিয়েছে সরকারবাংলাদেশ ও সৌদি আরবের মধ্যে ৫টি সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরএনটিআরসিএ'র নতুন চেয়ারম্যান পদে আশফাক হোসেনকে নিয়োগ দিয়েছে সরকারমানুষের স্বচ্ছতা বাড়ায় প্রতিবছর দেশে পূজা মণ্ডপ বাড়ছে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী“দেশে কোন সংখ্যালঘু নেই” : র‌্যাবের মহাপরিচালক নির্বাচন কমিশনারদের মধ্যে-মতবিরোধ থাকলেও জাতীয় নির্বাচন পরিচালনায় প্রভাব পড়বে না : সিইসিবাসাবাড়ি'র গ্যাসের মূল্য আপাতত বাড়ছে না : বিইআরসিঢাকেশ্বরী জাতীয় মন্দিরের জন্য দেড় বিঘা জমি প্রদান করলেন প্রধানমন্ত্রী‘পদ্মাসেতু রেল সংযোগ নির্মাণ প্রকল্পের’ উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রীবাঙালি হিন্দু সম্প্রদায়ের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজা আজ শুরু সমুদ্র বন্দরসমূহকে ৩ নম্বর স্থানীয় সতর্ক সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে‘তিতলি’'র প্রভাবে ভারি বৃষ্টিপাতের আভাস : ভূমিধসের আশঙ্কাপ্রধানমন্ত্রী কর্তৃক ভিডিও কনফারেন্সে নড়াইলের ‘শেখ রাসেল সেতু’ উদ্বোধনভারতের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলে ঘূর্ণিঝড় ‘তিতলি’র আঘাতে ৮ জনের প্রাণহানি : ক্রমশ: দুর্বল হচ্ছেএকুশ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলার রায় : বাবরসহ ১৯ জনের মৃত্যুদন্ড ❏ তারেকসহ ১৯ জনের যাবজ্জীবনইতিহাসের বর্বরোচিত গ্রেনেড হামলার মামলা ❏ বিচারের ঐতিহাসিক রায় আজসামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ‘গুজব শনাক্তকরণ সেল’ গঠন করেছে সরকারবিশ্ব বরেণ্য চিত্রশিল্পী এসএম সুলতানের ২৪ তম মৃত্যুবার্ষিকী আজদুর্যোগ কবলিত ইন্দোনেশিয়া লম্বা হচ্ছে লাশের মিছিল
  • আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জঙ্গিবাদ কোন প্রভাব ফেলতে পারবে না : আইজিপি সরকারি চাকরিতে প্রবেশের সর্বোচ্চ বয়স ৩৫ বছর করার উদ্যোগ নিয়েছে সরকারবাংলাদেশ ও সৌদি আরবের মধ্যে ৫টি সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরএনটিআরসিএ'র নতুন চেয়ারম্যান পদে আশফাক হোসেনকে নিয়োগ দিয়েছে সরকারমানুষের স্বচ্ছতা বাড়ায় প্রতিবছর দেশে পূজা মণ্ডপ বাড়ছে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী“দেশে কোন সংখ্যালঘু নেই” : র‌্যাবের মহাপরিচালক নির্বাচন কমিশনারদের মধ্যে-মতবিরোধ থাকলেও জাতীয় নির্বাচন পরিচালনায় প্রভাব পড়বে না : সিইসিবাসাবাড়ি'র গ্যাসের মূল্য আপাতত বাড়ছে না : বিইআরসিঢাকেশ্বরী জাতীয় মন্দিরের জন্য দেড় বিঘা জমি প্রদান করলেন প্রধানমন্ত্রী‘পদ্মাসেতু রেল সংযোগ নির্মাণ প্রকল্পের’ উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রীবাঙালি হিন্দু সম্প্রদায়ের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজা আজ শুরু সমুদ্র বন্দরসমূহকে ৩ নম্বর স্থানীয় সতর্ক সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে‘তিতলি’'র প্রভাবে ভারি বৃষ্টিপাতের আভাস : ভূমিধসের আশঙ্কাপ্রধানমন্ত্রী কর্তৃক ভিডিও কনফারেন্সে নড়াইলের ‘শেখ রাসেল সেতু’ উদ্বোধনভারতের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলে ঘূর্ণিঝড় ‘তিতলি’র আঘাতে ৮ জনের প্রাণহানি : ক্রমশ: দুর্বল হচ্ছেএকুশ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলার রায় : বাবরসহ ১৯ জনের মৃত্যুদন্ড ❏ তারেকসহ ১৯ জনের যাবজ্জীবনইতিহাসের বর্বরোচিত গ্রেনেড হামলার মামলা ❏ বিচারের ঐতিহাসিক রায় আজসামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ‘গুজব শনাক্তকরণ সেল’ গঠন করেছে সরকারবিশ্ব বরেণ্য চিত্রশিল্পী এসএম সুলতানের ২৪ তম মৃত্যুবার্ষিকী আজদুর্যোগ কবলিত ইন্দোনেশিয়া লম্বা হচ্ছে লাশের মিছিল
উপরে