প্রকাশ : ১৮ নভেম্বর, ২০১৮ ১৩:৪২:১৩
‘কেশবপুরে প্রতি শীত মৌসুমে থাকে শুটকি মাছের ব্যবসা রমরমা’
বাংলাদেশ বাণী, কেশবপুর (যশোর) প্রতিনিধি : কেশবপুরে শীত মৌসুম আসলেই শুটকি মাছের ব্যাবসায় নেমে পড়ে ব্যবসায়ীরা। দেশের চাহিদা মিটিয়ে বিদেশেও রপ্তানী হচ্ছে শুটকি মাছ। প্রতিদিন সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত শুটকি মাছের কাজে পুরুষের পাশাপাশি নারীরাও শ্রম হিসাবে নিয়োজিত হচ্ছে বলে দেখা গেছে।

উপজেলার কেদারপুর, কুশুলদিয়া, মজিদপুর ও ভোগতী নরেন্দ্রপুর গ্রামে ঘুরে দেখা গেছে পুরুষের পাশাপাশি নারীরাও শুটকি মাছের কাজে ব্যাস্ত সময় পার করেছেন। কেদারপুর গ্রামের বিল্লাল বিশ্বাস, জসিম বিশ্বাস ও কালাম বিশ্বাস সাংবাদিকদের জানান, শীত মৌসুম আসলেই আমরা শুটকি মাছের ব্যবসায় পুরোদোমে নেমে পড়ি। গত বছর ব্যবসায় ক্ষতি হলেও এবার তা পুষিয়ে নেওয়ার আশা রয়েছে। মজিদপুর গ্রামের মিজানুর রহমান জানান, সিলভার মাছ প্রতি মণ ৮ ’শ থেকে ১০০০ টাকা দরে ক্রয় করে থাকি।

এরপর ওই মাছ গুলি শুকিয়ে প্রতি মণ ২ হাজার থেকে আড়াই হাজার টাকা বিক্রয় করা হয়। এর পাশাপাশি পুঁটি মাছও শুকানো হয়। এসমস্ত শুটকি মাছ সৈয়দপুর, দিনাজপুর, সিলেট, চিটাগাংয়ের চাহিদা মিটিয়ে বিদেশেও রপ্তানি করা হয়। শত গত বছরের তুলনায় এবছরে মাছের দাম বেশী হলেও লাভের আশা করছি।

আমার এখানে প্রায় ২০ জন নারী-পুরুষ কাজ করে থাকেন। পুরুষের শ্রম প্রতি ৩ শত টাকা ও নারীদের শ্রম প্রতি ২ শত টাকা করে প্রদান করি। এরা সকাল ৬টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত এই কাজে নিয়োজিত থাকে।

এদিকে ভোগতী নরেন্দ্রপুর গ্রামের হায়দার আলী বিশ্বাস ও কুশুলদিয়া গ্রামের বলরাম জানান আমরা প্রতি বছরে শুটকি মাছের ব্যবসা করে আসছি। গত বছরে মাছের আমদানী বেশী থাকলেও ব্যবসায় লোকসান হয়েছিল।
এবার আমরা ওই লোকসান পুষিয়ে নিতে পারব বলে মনে করছি। এই শুটকি মাছ ৬ মাস ধরে আমরা পরিচালনা করে থাকি। ফজলু, কালাম, কামরুল, আয়ুব আলী, জাহাঙ্গীর, সবুজসহ অনেকেই জানান আমরা প্রতিবছরে শীত মৌসুম আসলে শুটকি মাছের কাজে নিয়োজিত হয়ে থাকি এবং শ্রমও বেশী পায়।

বাকি মাস গুলোতে আমরা বাড়ি বসে না থেকে সকল শ্রম  কাজে নিয়োজিত হই। রামকৃষপুর গ্রামের রেনু বেগম, নাজমা বেগম, আকলিমা বেগম, রাজিয়া বেগম, সুফিয়া বেগম, আলেক বেগম, হামিদা বেগম, মজিদপুর গ্রামের জাহানারা বেগম, রেশমা বেগম, তাসলিমা বেগম, ভোগতী নরেন্দ্রপুর গ্রামের ফতেমা বেগম, জোহরা বেগম, আকলিমা বেগম, জাহানারা বেগম, চায়না বেগম, কুশুলদিয়া গ্রামের মনিরা বেগম, সাদিয়া বেগম ও রাফেজা বেগম সাংবাদিকদের জানান আমরা প্রতি বছরে কর্মসূচির কাজ থেকে শুরু করে সকল কাজে পুরুষের পাশাপাশি আমরাও কাজে নিয়োজিত হই।

তারা বলেন প্রতিদিন সকাল ৬ টা থেকে সন্ধ্যা ৬ টা পর্যন্ত ২শত টাকা করে শ্রমের মজুরি পায়। আমরা গরীব ঘরের স্ত্রী হওয়ায় ঘরে বসে থাকতে পারি না। শ্রম দিয়ে অর্থ উপার্জন করে স্বামী সন্তানদের নিয়ে ভালই সুখে আছি। আমরা বাড়ি বসে না থেকে কাজ করে খেটে খেয়েও মনের মাঝে একটু সুখ আনন্দ খুজে পায়।

 
সর্বশেষ সংবাদ
  • সাগর পথে মালয়েশিয়া যাওয়ার সময় নারী ও শিশুসহ ৬৭ জন রোহিঙ্গা উদ্ধারআদায় করা হচ্ছে বাড়তি ভাড়া : বাস টিকিটের জন্য হাহাকার বাড়ছে সৌম্য-মোসাদ্দেকের বিধ্বংসী ব্যাটিং : ত্রিদেশীয় সিরিজে চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশএকাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ৩০৫৬ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আজ মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিননিরপেক্ষভাবে নির্বাচনী দায়িত্ব পালনে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটদের প্রতি সিইসি’র নির্দেশ৬টি সংসদীয় আসনের সবকটি কেন্দ্রে ইভিএম ব্যবহার করা হবে : ইসি সচিবওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে প্রথম জয়ের স্বাদ পেল টাইগাররাসংসদ নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহারে কোন আইনগত বাঁধা নেই : সিইসি ‘ডেইলি লিডারশিপ’-এ প্রতিবেদন-বিশ্বের সাদাসিধে জীবনযাপনকারী রাষ্ট্রপ্রধানদের ১জন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দুইম্যাচ সিরিজে প্রথম দিনে মোমিনুলের সেঞ্চুরি : বাংলাদেশের সংগ্রহ ৩১৫আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারীবাহিনীকে সিইসি’র ১২ দফা নির্দেশনা যথাযথ মর্যাদা ও উৎসাহ-উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে সশস্ত্র বাহিনী দিবস পালিতযথাযোগ্য ধর্মীয় মর্যাদায় পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.) উদযাপিত বীরশ্রেষ্ঠ শহীদ নূর মোহাম্মদ শেখের স্ত্রী বেগম ফজিলাতুন্নেসা’র ইন্তেকালওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে বন্ধ্যাত্ব ঘোচানোর মিশনে নামছে টাইগাররা আজ পবিত্র ঈদ-ই মিলাদুন্নবী (সা.) : রাষ্টপতি ও প্রধানমন্ত্রী’র পৃথক বাণীবিদেশি টিভি চ্যানেলে দেশিপণ্যের বিজ্ঞাপন প্রচার অবিলম্বে বন্ধের নির্দেশ রাজধানীতে ট্রাফিক আইন ভঙ্গকারীদের বিরুদ্ধে ট্রাফিক বিভাগের অভিযানআগামী বুধবার পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.) : পক্ষকালব্যাপী অনুষ্ঠানমালা
  • সাগর পথে মালয়েশিয়া যাওয়ার সময় নারী ও শিশুসহ ৬৭ জন রোহিঙ্গা উদ্ধারআদায় করা হচ্ছে বাড়তি ভাড়া : বাস টিকিটের জন্য হাহাকার বাড়ছে সৌম্য-মোসাদ্দেকের বিধ্বংসী ব্যাটিং : ত্রিদেশীয় সিরিজে চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশএকাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ৩০৫৬ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আজ মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিননিরপেক্ষভাবে নির্বাচনী দায়িত্ব পালনে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটদের প্রতি সিইসি’র নির্দেশ৬টি সংসদীয় আসনের সবকটি কেন্দ্রে ইভিএম ব্যবহার করা হবে : ইসি সচিবওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে প্রথম জয়ের স্বাদ পেল টাইগাররাসংসদ নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহারে কোন আইনগত বাঁধা নেই : সিইসি ‘ডেইলি লিডারশিপ’-এ প্রতিবেদন-বিশ্বের সাদাসিধে জীবনযাপনকারী রাষ্ট্রপ্রধানদের ১জন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দুইম্যাচ সিরিজে প্রথম দিনে মোমিনুলের সেঞ্চুরি : বাংলাদেশের সংগ্রহ ৩১৫আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারীবাহিনীকে সিইসি’র ১২ দফা নির্দেশনা যথাযথ মর্যাদা ও উৎসাহ-উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে সশস্ত্র বাহিনী দিবস পালিতযথাযোগ্য ধর্মীয় মর্যাদায় পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.) উদযাপিত বীরশ্রেষ্ঠ শহীদ নূর মোহাম্মদ শেখের স্ত্রী বেগম ফজিলাতুন্নেসা’র ইন্তেকালওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে বন্ধ্যাত্ব ঘোচানোর মিশনে নামছে টাইগাররা আজ পবিত্র ঈদ-ই মিলাদুন্নবী (সা.) : রাষ্টপতি ও প্রধানমন্ত্রী’র পৃথক বাণীবিদেশি টিভি চ্যানেলে দেশিপণ্যের বিজ্ঞাপন প্রচার অবিলম্বে বন্ধের নির্দেশ রাজধানীতে ট্রাফিক আইন ভঙ্গকারীদের বিরুদ্ধে ট্রাফিক বিভাগের অভিযানআগামী বুধবার পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.) : পক্ষকালব্যাপী অনুষ্ঠানমালা
উপরে