প্রকাশ : ১৬ জুন, ২০১৭ ১৫:১৬:২০
প্রিন্সেস ডায়নার ‘সুইসাইড টেপ’!
বাংলাদেশ বাণী, ডেস্ক রিপোর্ট : প্রিন্স চার্লস আর প্রিন্সেস ডায়না। এ দম্পতির বৈবাহিক জীবন সুখময় ছিল না। সেটা অনেকেরই জানা। বিয়ের শুরু থেকেই প্রিন্সেস ডায়না অসুখী ছিলেন। কারণ বিয়ের কয়েক সপ্তাহ পরই টের পান কেমিলা পার্কার বোয়েলসের সঙ্গে সম্পর্ক চালিয়ে যাচ্ছেন তার প্রিয়তম স্বামী প্রিন্স চার্লস। তাইতো তিনি নিজের হাত কেটে আত্মহত্যা করতে চেয়েছিলেন।

ডায়না ‘সুইসাইড টেপ’ এর কথোপকথন নিয়ে সম্প্রতি প্রকাশিত একটি বই থেকে বৈবাহিক জীবন এবং তার হতাশার কথা জানা গেছে।

প্রিন্সেস অব ওয়েসের বরাত দিয়ে ওই বইয়ে বলা হয়েছে, ‘আমি খুবই হতাশ ছিলাম। রেজারের ব্লেড দিয়ে আমি হাত কাটার চেষ্টাও করেছিলাম।’

ধারণা করা হয় ১৯৯১ সালে ওই ‘সুইসাইড টেপটি’ রেকর্ড করেছিলেন ডায়না। এ কাজে তাকে সাহায্য করেছিল তার এক বন্ধু। ২০ বছর পর্যন্ত এ টেপটি গোপন রাখা হয়।  ওই টেপ থেকে ডায়নার কথা নিয়ে অ্যান্ড্রু মর্টন ‘ডায়না-হার ট্রু স্টোরি’ নামে বইটি প্রকাশ করেছেন।

মধুচন্দ্রিমার পর থেকে কিভাবে তার জীবন বিষিয়ে উঠতে শুরু করে সেটা ওই টেপে বর্ণনা দিয়েছেন ডায়না।  

তিনি বলেন, ‘দিন দিন আমার সমস্যা বেড়েই চলছিল। এটা এক সময় ভয়াবহ হয়ে ওঠে। সেটা আমার চেহারা দেখেও বোঝা যাচ্ছিল।

লোকজন আমাকে দেখে বলতো, তুমি অনেক রোগা হয়ে গেছো। তোমার সব হাড় দেখা যাচ্ছে।

১৯৮১ সালের অক্টোবরে আমি খুব খারাপ সময়ের মধ্য দিয়ে যাচ্ছিলাম।  তখন খুব বৃষ্টি হচ্ছিল। এর মধ্যে আমি হাত কেটে আত্মহত্যার চেষ্টা করি। আমার মানসিক অবস্থা এতটাই খারাপ হয়েছিল যার কারণে বাধ্য হয়ে আমি চিকিৎসকের কাছে যাই।’

এর আগের বইতে ডায়নার বন্ধুর বরাত দিয়ে তার আত্মহত্যার চেষ্টা কথা বলা হয়েছিল। নতুন এডিশনে ডায়নার বরাত দিয়ে বলা হয়েছে।

ডায়না বলেন, ‘আমার বিয়ের সময় থেকেই কেমিলা ছায়া হয়েছিল আমাদের সম্পর্কের ভেতর। এমকি বিয়ের সময় আমি যখন হেঁটে গিয়েছি তখনও সে আমার পাশে পাশেই হাটছিল বলে মনে হচ্ছিল। আমি তাকে দেখতে পাচ্ছিলাম না। কিন্তু আমি জানতাম সে এখানেই আছে। বিয়ের দিন সবাই আমাদের ঘিরে আনন্দ করছিল। কিন্তু আমি নিজেকে সুখী ভাবতে পারছিলাম না।

সে (কেমিলা) চার্লসকে খুব ভালোবাসতো। সে তার দিক থেকে যেন চোখই সরাতে পারছিল না। তবে চার্লস আমাকে বিয়ে করায় নিজেকে ভাগ্যবান মনে হচ্ছিল তখন। কিন্তু আমার ধারণা একেবারেই ভুল ছিল। কয়েক দিন পরই আমার সেই ভুল ভাঙে। চার্লস আসলে আমাকে কখনই ভালোবাসেনি। সে কেমিলাকেই ভালোবেসেছে সব সময়। এটা আমি বিয়ের কিছুদিন পরেই জানতে পারি। যা মেনে নেয়া আমার জন্য ছিল কঠিন।’

 
সর্বশেষ সংবাদ
  • শেখ হাসিনার জন্যই বাংলাদেশ আজ উন্নয়নের রোল মডেল : এ্যাড. মনির এমপি১৯৬৯ সালে শেখ মুজিব ‘বঙ্গবন্ধু’ উপাধিতে ভূষিত হন : তোফায়েল আহমেদআজ থেকে শুরু হচ্ছে জাটকা সংরক্ষণ সপ্তাহ বিনম্র শ্রদ্ধা আর ভালোবাসায় ভাষা শহীদদের স্মরণ করেছে সমগ্র জাতি“আমার ভাইয়ের রক্তে রাঙানো মহান আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস আজ”একুশের গ্রন্থমেলায় মেলায় প্রতিদিনই বই বিক্রি বাড়ছেআন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে যাতায়াতের রুটম্যাপ প্রণয়নবিশ্ব ভালবাসা দিবসে অমর একুশের গ্রন্থমেলায় দর্শনার্থীদের ঢলশেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ নির্ধারিত সময়ের আগেই উন্নত দেশে পরিণত হবে : সরকারি দলরোহিঙ্গা শরণার্থী সমস্যা নিরসনে ইইউ বাংলাদেশের প্রতি সমর্থন অব্যাহত রাখবে টাঙ্গাইলের মধুপুরে চাঞ্চল্যকর রূপা ধর্ষণ ও হত্যা মামলায় ৪ জনের ফাঁসি’র আদেশআদালতের আদেশ অনুযায়ী কারাগারে ডিভিশন পেলেন খালেদা জিয়াভারতীয় গণমাধ্যমের মন্তব্য খালেদার দণ্ড হাসিনাকে শক্তিশালী করেছেএকুশের বই মেলায় প্রাণ এসেছে : বেড়েছে বিক্রি জনগণের জানমাল রক্ষায় যতদিন প্রয়োজন ততদিনই পুলিশি নিরাপত্তা থাকবে : আইজিপি‘রায়ের কপি হাতে পেলেই হাইকোর্টে আপিল করা হবে’তারেকসহ অন্যদের ১০ বছর কারাদন্ড-জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় রায় : সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার ৫ বছর জেল ভীত হবেন না : আশ্বস্ত করছি ৮ ফেব্রুয়ারি কিছু হবে না : আইজিপি রাষ্ট্রপতি পদে এ্যাড. মো. আবদুল হামিদের পক্ষে মনোনয়নপত্র দাখিলবিএডিসি ও পিআইবি আইনের খসড়া অনুমোদন করেছে মন্ত্রিসভা
  • শেখ হাসিনার জন্যই বাংলাদেশ আজ উন্নয়নের রোল মডেল : এ্যাড. মনির এমপি১৯৬৯ সালে শেখ মুজিব ‘বঙ্গবন্ধু’ উপাধিতে ভূষিত হন : তোফায়েল আহমেদআজ থেকে শুরু হচ্ছে জাটকা সংরক্ষণ সপ্তাহ বিনম্র শ্রদ্ধা আর ভালোবাসায় ভাষা শহীদদের স্মরণ করেছে সমগ্র জাতি“আমার ভাইয়ের রক্তে রাঙানো মহান আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস আজ”একুশের গ্রন্থমেলায় মেলায় প্রতিদিনই বই বিক্রি বাড়ছেআন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে যাতায়াতের রুটম্যাপ প্রণয়নবিশ্ব ভালবাসা দিবসে অমর একুশের গ্রন্থমেলায় দর্শনার্থীদের ঢলশেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ নির্ধারিত সময়ের আগেই উন্নত দেশে পরিণত হবে : সরকারি দলরোহিঙ্গা শরণার্থী সমস্যা নিরসনে ইইউ বাংলাদেশের প্রতি সমর্থন অব্যাহত রাখবে টাঙ্গাইলের মধুপুরে চাঞ্চল্যকর রূপা ধর্ষণ ও হত্যা মামলায় ৪ জনের ফাঁসি’র আদেশআদালতের আদেশ অনুযায়ী কারাগারে ডিভিশন পেলেন খালেদা জিয়াভারতীয় গণমাধ্যমের মন্তব্য খালেদার দণ্ড হাসিনাকে শক্তিশালী করেছেএকুশের বই মেলায় প্রাণ এসেছে : বেড়েছে বিক্রি জনগণের জানমাল রক্ষায় যতদিন প্রয়োজন ততদিনই পুলিশি নিরাপত্তা থাকবে : আইজিপি‘রায়ের কপি হাতে পেলেই হাইকোর্টে আপিল করা হবে’তারেকসহ অন্যদের ১০ বছর কারাদন্ড-জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় রায় : সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার ৫ বছর জেল ভীত হবেন না : আশ্বস্ত করছি ৮ ফেব্রুয়ারি কিছু হবে না : আইজিপি রাষ্ট্রপতি পদে এ্যাড. মো. আবদুল হামিদের পক্ষে মনোনয়নপত্র দাখিলবিএডিসি ও পিআইবি আইনের খসড়া অনুমোদন করেছে মন্ত্রিসভা
উপরে