প্রকাশ : ৩০ জানুয়ারি, ২০১৬ ২৩:৪৯:২৩
কাজ করছেন যারা ॥ ঝিকরগাছা পৌরসভার উন্নয়নকে চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়েছি : জামাল পাশা
বাংলাদেশ বাণী টোয়েন্টিফোর ডটকম, আবুল কালাম আজাদ, ঝিকরগাছা (যশোর) অফিস : যশোরের ঝিকরগাছা পৌরসাভার চলমান উন্নয়ন প্রকল্প সমূহকে চ্যালেঞ্জ হিসাবে নিয়েছি বলে মন্তব্য করেছেন মেয়র মোস্তফা আনোয়ার পাশা জামাল। উন্নয়ন সহযোগী সংস্থাগুলোকে আস্থায় নিতে সক্ষম হয়েছি উল্লেখ করে এক একান্ত সাক্ষাতকারে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করে বলেন, কপোতাক্ষ নদ অববাহিকার ঝিকরগাছা পৌরশহর রক্ষাবাধ নির্মাণ, বনায়ন, সৌন্দ্যর্য বর্ধন, রাস্তা নির্মাণ প্যাকেজ প্রকল্প অনুমোদন এখন সময়ের ব্যাপার মাত্র। শতকোটি টাকার এই বরাদ্দ হবে ঝিকরগাছা পৌরউন্নয়নে ‘মেগা প্রজেক্ট।’

এই মোটা অংকের বরাদ্দ প্রাপ্তিতে শতভাগ আশাবাদি উল্লেখ করেন তিনি। উন্নয়নের ছোঁয়ায় ঝিকরগাছা পৌরসভার চেহারা পাল্টে যেতে শুরু করেছে। এদিকে ‘নগর অঞ্চল উন্নয়ন প্রকল্প’ (সিআরডিপি) চলমান তিনটি প্যাকেজ প্রকল্পের কাজ প্রায় বাস্তবায়নের পথে। প্রায় ৩১ কোটি টাকার এসব উন্নয়ন প্রকল্পের রাস্তা-ঘাট, ব্রীজ-কালভার্ট, বক্স ড্রেনেজ, ক্যানেল, ফুটপাত নির্মাণ প্রায় শেষের পথে। এখন চলছে সৌন্দ্যর্য বর্ধনের কাজ।
উন্নয়ন সংস্থা এশিয় উন্নয়ন ব্যাংক (এডিবি) ও জার্মানির কেএফডাব্লিউ এসব প্রকল্প বাস্তবায়নে অর্থায়ান করছে জানান মেয়র মোস্তাফা আনোয়ার পাশা। তিনি বলেন, দ্বিতীয় শ্রেণির পৌরসাভা হওয়ার সত্বেও সীমাবদ্ধতার মধ্যে পৌরসভাকে উন্নয়নের ‘রোল মডেল’ হিসাবে গড়ে তুলতে চাই।

পৌর নির্বাচন আইনি জটিলতার কফিনে বন্দি এবং আপনি সেই কফিনে শেষ পেরেক ঠুঁকে দিয়েছেন? সমালোচকদের এমন মন্তব্যের প্রতিক্রিয়া জানতে চাইলে মেয়র আনোয়ার পাশা বলেন, শুধু ঝিকরগাছা নয়, অনেক পৌরসাভার মেয়াদোত্তীর্ণ হলেও সীমানা সংক্রান্ত আইনি জাটিলতায় নির্বাচন ঝুলে রয়েছে। তাছাড়া বিষয়টি উচ্চ আদালতে বিচারাধীন তাই এ ব্যাপারে কোন মন্তব্য করতে চাই না। তবে আমরাও চাই ঝিকরগাছা পৌরসভার নির্বাচন হোক। তিনি বলেন, আমাদের সংগঠন বাংলাদেশ মিউনিসিপালিটি এ্যাসোসিয়েশন’র (ম্যাব) পক্ষ থেকে আমরা সংশ্লিষ্ট মন্ত্রনালয়কে স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছি, আমরা ‘প্রশাসক’ নিয়োগ হতে দিব না। রেলবস্তির হরিজন পল্লীর বাসিন্দাদের স্থায়ী পূনর্বাসন বিলম্বিত হওয়ার কারণ কি? এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, পৌরসভার তালিকাভূক্ত পরিচ্ছন্নতা কর্মী ছাড়াও হরিজন পরিবার সংখ্যা অনেক এবং  তা ব্যয়বহুল। স্বদিচ্ছার অভাব নেই। কিন্তু উপযুক্ত জমি না পাওয়ায় তাদের স্থায়ী পূণর্বাসান এই মুহূর্তে সম্ভব নয়। তার পরও তাদের দাবির প্রেক্ষিতে ও মানবিক বিবেচনায় তাদের স্বতন্ত্র বসতি পল্লীতে সাময়িক পূণর্বাসনের ব্যবস্থা করা হয়েছে। তাদের ভাতা বৃদ্ধির ব্যপারটিও বিবেচনাধীন বলে জানান মেয়র মোস্তফা আনোয়ার পাশা।

চলমান উন্নয়ন প্রকল্প ঘিরে ‘জনদুর্ভোগ’ সৃষ্টির ব্যপারে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে তিনি সাময়িক অসুবিধার জন্য দু:খ প্রকাশ করে বলেন, অল্প কয়েক দিনের মধ্যে ড্রেনেজ ও রাস্তার কাজ শেষ হবে। মোবারকপুর-ত্রিমোহিনী সড়কটি নির্মাণে বিলম্বিত হওয়ায় ধুলা-বালিতে জনদুর্ভোগ চরমে এবং জনস্বাস্থ্য হুমকির মুখে! এমন প্রশ্নে তিনি দাবি করেন, সড়কটির বিটুমিনাস ও কার্পেটিং বিলম্বিত হওয়ার কারণ ক্যানেল-সেতু নির্মাণ ও কায়েকটি বৈদ্যুতিক খুটি অপসারণ ও নির্মাণ সামগ্রি পরিবহণ করতে না পারায় এ কাজ সমাপ্ত করতে কিছুটা বিলম্বিত হচ্ছে। তিনি পৌরসভার চলমান উন্নয়ন তরান্মিত করতে দলমত নির্বিশেষে সকলের সহযোগীতা কামনা করেছেন।

উল্লেখ্য, ১৯৮৮ সালের ৪ এপ্রিল ‘খ’ শ্রেণির অন্তর্ভূক্ত রেখে ঝিকরগাছা পৌরসভা গঠন করা হয়। ১ম সভা অনুষ্ঠিত হয় ২০০১ সালের ১৩ মে। পৌরসভার মোট আয়াতন ধরা হয় ৯.৪৩ বর্গকিলোমিটার। মোট জনসংখ্যা ৩১ হাজার ৩৫৩ জন। এর মধ্যে ১৬ হাজার ১৪২ জন পুরুষ ও ১৫ হাজার ২১১ জন মহিলা ভোটার রয়েছে। মোট হোল্ডিং সংখ্যা ৪ হাজার ৭৪৩টি। শিক্ষার আনুপাতিক হার ৬৯ শতাংশ। অবকাঠামো : পাঁকা রাস্তা কার্পেটিং ২১ দশমিক ৬০৮ কি:মি:, সলিং ৫ দশমিক ১০২ কি:মি:, এইচ বি বি রাস্তা ২০ দশমিক ৫০৯ কি:মি, সিসি রাস্তা ২ দশমিক ১২০ কি:মি:, কাচা রাস্তা ১২ দশমিক ৮৯৫ কি:মি:, আর সিসি ড্রেন ৩ দশমিক ৫৩০ কি:মি:, ব্রিক ড্রেন ৫ দশমিক ৪৪৪ কি:মি:, কাচা ড্রেন ৩ দশমিক ৫৬৫ কি:মি:।

বাংলাদেশ বাণী/কাসা/ডেস্ক/নি.প্রতি/কালাম/ঝিকরগাছা/৩০/০১/২০১৬. ১১:৪৫ (পিএম) ঘ.    
 
সর্বশেষ সংবাদ
  • বিএনপির সঙ্গে কোন রাজনৈতিক সমঝোতা নাকচ করে দিলেন প্রধানমন্ত্রীট্রাম্প হচ্ছেন ‘আন্তর্জাতিক রাজনীতিতে নবাগত দুষ্টু ব্যক্তি’: ইরানের প্রেসিডেন্টমিয়ানমারের সিত্তুয়েতে রোহিঙ্গাদের জন্য রেডক্রসের ত্রাণবাহী নৌকায় বৌদ্ধদের হামলাজলি আত্মহত্যা প্ররোচণা মামলার চার্জশিট -‘সঠিক জবানবন্দি উপস্থাপন করতে পারেনি পুলিশ’রোহিঙ্গাদের জন্য জরুরী মানবিক সহায়তা ২৬২ কোটি ৩ লাখ টাকা দেবে যুক্তরাষ্ট্র ‌‘রোহিঙ্গা সংকট সমাধানে আপনাদের ঐক্য প্রদর্শন করুন’ : ওআইসিকে প্রধানমন্ত্রীপৌর অবকাঠামো উন্নয়নে ২০ কোটি মার্কিন ডলার ঋণ দেবে এডিবিরোহিঙ্গা ইস্যু নিয়ে বাংলাদেশের পাশে থাকার আশ্বাস ট্রাম্পেররোহিঙ্গা ইস্যুতে মুখ খুললেন : আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সহায়তা আহ্বান সুকি'র রোহিঙ্গা মুসলিমদের ওপর নির্যাতন বন্ধে এটাই সুচি’র শেষ সুযোগ : জাতিসংঘ মহাসচিব দক্ষিণ-পশ্চিম লন্ডনে পাতাল রেলে বিস্ফোরণ : পুলিশের দাবী সন্ত্রাসী হামলাজাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে যোগ দিতে প্রধানমন্ত্রী আজ নিউইয়র্ক যাচ্ছেনমিয়ানমারের আকাশসীমা লংঘনের তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছে বাংলাদেশমানুষকে খাদ্য নিয়ে কষ্ট পেতে দেব না : সংসদকে প্রধানমন্ত্রীরাখাইন রাজ্যের বর্তমান সংকটে যুক্তরাষ্ট্রের গভীর উদ্বেগ প্রকাশমানবিক কারণে রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দেয়া হয়েছে : প্রধানমন্ত্রীএ সমস্যা মিয়ানমার তৈরি করেছে-রোহিঙ্গা সমস্যার সমাধান তাদেরকেই করতে হবে : সংসদকে প্রধানমন্ত্রীমন্ত্রিসভার বৈঠকে জাতিসংঘ পারমাণবিক অস্ত্র নিষিদ্ধকরণ চুক্তি স্বাক্ষরের অনুমোদনওআইসি সম্মেলনে যোগ দিতে রাষ্ট্রপতি আজ আস্তানার উদ্দেশ্যে ঢাকা ত্যাগ করবেননির্বাচনকে প্রভাবিত করার রাজনীতি বিএনপি'র হাত ধরেই শুরু হয়েছে : প্রধানমন্ত্রী
  • বিএনপির সঙ্গে কোন রাজনৈতিক সমঝোতা নাকচ করে দিলেন প্রধানমন্ত্রীট্রাম্প হচ্ছেন ‘আন্তর্জাতিক রাজনীতিতে নবাগত দুষ্টু ব্যক্তি’: ইরানের প্রেসিডেন্টমিয়ানমারের সিত্তুয়েতে রোহিঙ্গাদের জন্য রেডক্রসের ত্রাণবাহী নৌকায় বৌদ্ধদের হামলাজলি আত্মহত্যা প্ররোচণা মামলার চার্জশিট -‘সঠিক জবানবন্দি উপস্থাপন করতে পারেনি পুলিশ’রোহিঙ্গাদের জন্য জরুরী মানবিক সহায়তা ২৬২ কোটি ৩ লাখ টাকা দেবে যুক্তরাষ্ট্র ‌‘রোহিঙ্গা সংকট সমাধানে আপনাদের ঐক্য প্রদর্শন করুন’ : ওআইসিকে প্রধানমন্ত্রীপৌর অবকাঠামো উন্নয়নে ২০ কোটি মার্কিন ডলার ঋণ দেবে এডিবিরোহিঙ্গা ইস্যু নিয়ে বাংলাদেশের পাশে থাকার আশ্বাস ট্রাম্পেররোহিঙ্গা ইস্যুতে মুখ খুললেন : আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সহায়তা আহ্বান সুকি'র রোহিঙ্গা মুসলিমদের ওপর নির্যাতন বন্ধে এটাই সুচি’র শেষ সুযোগ : জাতিসংঘ মহাসচিব দক্ষিণ-পশ্চিম লন্ডনে পাতাল রেলে বিস্ফোরণ : পুলিশের দাবী সন্ত্রাসী হামলাজাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে যোগ দিতে প্রধানমন্ত্রী আজ নিউইয়র্ক যাচ্ছেনমিয়ানমারের আকাশসীমা লংঘনের তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছে বাংলাদেশমানুষকে খাদ্য নিয়ে কষ্ট পেতে দেব না : সংসদকে প্রধানমন্ত্রীরাখাইন রাজ্যের বর্তমান সংকটে যুক্তরাষ্ট্রের গভীর উদ্বেগ প্রকাশমানবিক কারণে রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দেয়া হয়েছে : প্রধানমন্ত্রীএ সমস্যা মিয়ানমার তৈরি করেছে-রোহিঙ্গা সমস্যার সমাধান তাদেরকেই করতে হবে : সংসদকে প্রধানমন্ত্রীমন্ত্রিসভার বৈঠকে জাতিসংঘ পারমাণবিক অস্ত্র নিষিদ্ধকরণ চুক্তি স্বাক্ষরের অনুমোদনওআইসি সম্মেলনে যোগ দিতে রাষ্ট্রপতি আজ আস্তানার উদ্দেশ্যে ঢাকা ত্যাগ করবেননির্বাচনকে প্রভাবিত করার রাজনীতি বিএনপি'র হাত ধরেই শুরু হয়েছে : প্রধানমন্ত্রী
উপরে