প্রকাশ : ০৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ১৭:২২:৫৬
রহস্যটা কি? পুরুষদের মাঝে বিয়েতে অনীহার কারণ !
বাংলাদেশ বাণী, লাইফস্টাইল ডেস্ক : ধর্মীয় ও সামাজিক সব দৃষ্টিকোণ থেকেই বিয়ে গুরুত্বপূর্ণ। ইসলামে বিয়েকে বলা হয়েছে ঈমানের অর্ধেক। বিয়ের মাধ্যমেই ঈমানের পূর্ণতা পায়। বিয়ে মানব জীবনের অন্যতম চাহিদাও বটে। তবে বর্তমান সময়ে পুরুষদের মধ্যে বিয়ের আগ্রহটা কমেই যাচ্ছে। আসলে সেক্স যদি মুখের কথা খসলেই মেলে তাহলে আর ছাঁদনাতলায় যাওয়ার দরকার কী!

ঠিক এ কারণেই আমেরিকায় যুবকদের মধ্যে বিবাহিতের শতাংশ কমেছে। ২০০০ থেকে ২০১৪-র মধ্যে ২৫-৩৪ বছর বয়সি মার্কিনদের নিয়ে এক সমীক্ষায় দেখা যাচ্ছে বিবাহিত কমেছে ১৩ শতাংশ। সমাজতাত্ত্বিক মার্ক রেগনেরাস বলছেন, যৌনতা সস্তা হয়ে যাওয়াই এই বিয়েতে অনীহার কারণ।
                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                       
সস্তায় সেক্স মানে যার জন্য সময় আর আবেগ-দুয়েরই খরচ খুব কম, একেবারে নগণ্য। চাইলে মেলে। চিপ সেক্স : দ্য ট্রান্সফর্মেশন অফ মেন, ম্যারেজ অ্যান্ড মনোগ্যামিতে রোগনেরাস বলছেন, বিয়ে আর সেক্স পরস্পরের সঙ্গে সংযুক্ত হলেও দুটো ভিন্ন বাজার। বিয়ে মানে দায়িত্ব, বিয়ে মানে দীর্ঘদিনের প্রক্রিয়া।

আগেকার দিনে মেয়েরা সাধারণত বিয়ের পর যৌনতায় লিপ্ত হত। ফলে সেক্সের জন্য বিয়েই ছিল একমাত্র ভদ্রস্থ উপায়। কিন্তু এখন চাইলেই দেখা যাচ্ছে পর্ন ছবি, জন্মদাতার দায়ভারও কার্যত নেই। অন্য আর পাঁচটা জিনিসের মত সেক্সও এখন বিক্রয়যোগ্য, ফলে পয়সা ফেলে বা অন্যভাবে-ইচ্ছেমত তা ম্যানেজ করছেন পুরুষরা।

রেগনেরাস বলেছেন, কুড়ির কোঠায় থাকা প্রতি তিনজনের একজন পুরুষ কখনও বিয়েই করবেন না।

এছাড়া পুরুষদের মধ্যে শিক্ষা আর কর্মসংস্থানের হার যে কমছে সে জন্যও তিনি দায়ী করেছেন এই সস্তায় সেক্সকে। গবেষণা বলছে, ২৫-৩৪ বছরের মধ্যে গ্র্যাজুয়েট পুরুষদের সংখ্যা মেয়েদের থেকে ৬ শতাংশ কম। তার কারণও সেক্সের সহজলভ্যতা। লেখাপড়া শিখে কেরিয়ার তৈরির দরকার কী, যখন বিয়ে ছাড়াই সেক্স মেলে।

মহিলারা বিয়েই বিশ্বাসী, বিশ্বাসী কমিটমেন্টে। কিন্তু বিয়ের ব্যাপারে চালকের আসনে এখনও পুরুষরাই। তারা বিয়েয় বিশ্বাস হারিয়েছে। তাই অনেক সময়েই দেখা যায় মেয়েরা এমন বিয়ে করতে বাধ্য হয়, যা ব্যর্থ হয় কিছুদিনের মধ্যে। ফলে, সেক্স যতদিন পুরুষের কাছে সহজলভ্য থাকবে, ততদিন বিসমকামী মহিলাদের পার্টনার খুঁজে পেতে সমস্যা হবে বলে রেগনেরাস জানিয়েছেন।


 
সর্বশেষ সংবাদ
  • বাংলাদেশকে উন্নত সমৃদ্ধ করে গড়ে তুলে জাতির পিতার স্বপ্ন পূরণ করবো : প্রধানমন্ত্রীবঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ বিশ্বের নিপীড়িত নির্যাতিত মানুষকে অনুপ্রাণিত করবে : সমাবেশে বক্তারা গেইল-ম্যাককালামের ব্যর্থতায় কুমিল্লার কাছে রংপুরের পরাজয়রাবির অপহৃত ছাত্রী ঢাকায় উদ্ধার : নিরাপত্তা নিয়ে শঙ্কা কাটেনিআজ নাগরিক সমাবেশে : সোহরাওয়ার্দী উদ্যান ফিরে পাবে একাত্তরের ৭ মার্চের আবহমিয়ানমার কর্তৃপক্ষের প্রতি রোহিঙ্গাদের ওপর হামলা বন্ধে জাতিসংঘের আহবান‘মিয়ানমারে রোহিঙ্গাদের গণহত্যার জোরালো প্রমাণ পাওয়া গেছে’টেকসই অবকাঠামো উন্নয়নে ২৬ কোটি ডলার দেবে এশীয় উন্নয়ন ব্যাংকদলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচনে যাবে না বিএনপি'র নেতৃত্বাধীন জোটসংসদীয় আসনের সীমানা পুন:নির্ধারণ আইন সংশোধনের খসড়া প্রস্তুত করেছে ইসিজিম্বাবুয়ের সেনা কর্মকর্তারা অভ্যুত্থানের কথা অস্বীকার করেছেনএকাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সেনা মোতায়েন বিষয়ে ইসি সিদ্ধান্ত নেয়নি : সিইসিআজ ভয়াল ১৫ নভেম্বর : স্বজন হারাদের কাঁন্না থামেনি আজও মন্ত্রিসভার বৈঠকে বিদ্যমান চিনি আইন রহিতের সিদ্ধান্তমহানগরী ঢাকাকে ‘সেফনগরী’ হিসেবে গড়ে তোলা হবে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীদশম জাতীয় সংসদের অষ্টাদশ অধিবেশন ১০ কার্য দিবস চলবেস্থানীয় সরকারের অধীন দেশের ১৩৩টি প্রতিষ্ঠানে ২৮ ডিসেম্বর ভোটগ্রহণবিএনপি দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচনে যাবে না : খালেদা জিয়া বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ : বিশ্ব ঐতিহ্যের স্বীকৃতি, সোমবার শাহবাগে ‘আনন্দ উৎসব ও স্মৃতিচারণ’ আজ বসছে দশম জাতীয় সংসদের অষ্টাদশ অধিবেশন
  • বাংলাদেশকে উন্নত সমৃদ্ধ করে গড়ে তুলে জাতির পিতার স্বপ্ন পূরণ করবো : প্রধানমন্ত্রীবঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ বিশ্বের নিপীড়িত নির্যাতিত মানুষকে অনুপ্রাণিত করবে : সমাবেশে বক্তারা গেইল-ম্যাককালামের ব্যর্থতায় কুমিল্লার কাছে রংপুরের পরাজয়রাবির অপহৃত ছাত্রী ঢাকায় উদ্ধার : নিরাপত্তা নিয়ে শঙ্কা কাটেনিআজ নাগরিক সমাবেশে : সোহরাওয়ার্দী উদ্যান ফিরে পাবে একাত্তরের ৭ মার্চের আবহমিয়ানমার কর্তৃপক্ষের প্রতি রোহিঙ্গাদের ওপর হামলা বন্ধে জাতিসংঘের আহবান‘মিয়ানমারে রোহিঙ্গাদের গণহত্যার জোরালো প্রমাণ পাওয়া গেছে’টেকসই অবকাঠামো উন্নয়নে ২৬ কোটি ডলার দেবে এশীয় উন্নয়ন ব্যাংকদলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচনে যাবে না বিএনপি'র নেতৃত্বাধীন জোটসংসদীয় আসনের সীমানা পুন:নির্ধারণ আইন সংশোধনের খসড়া প্রস্তুত করেছে ইসিজিম্বাবুয়ের সেনা কর্মকর্তারা অভ্যুত্থানের কথা অস্বীকার করেছেনএকাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সেনা মোতায়েন বিষয়ে ইসি সিদ্ধান্ত নেয়নি : সিইসিআজ ভয়াল ১৫ নভেম্বর : স্বজন হারাদের কাঁন্না থামেনি আজও মন্ত্রিসভার বৈঠকে বিদ্যমান চিনি আইন রহিতের সিদ্ধান্তমহানগরী ঢাকাকে ‘সেফনগরী’ হিসেবে গড়ে তোলা হবে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীদশম জাতীয় সংসদের অষ্টাদশ অধিবেশন ১০ কার্য দিবস চলবেস্থানীয় সরকারের অধীন দেশের ১৩৩টি প্রতিষ্ঠানে ২৮ ডিসেম্বর ভোটগ্রহণবিএনপি দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচনে যাবে না : খালেদা জিয়া বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ : বিশ্ব ঐতিহ্যের স্বীকৃতি, সোমবার শাহবাগে ‘আনন্দ উৎসব ও স্মৃতিচারণ’ আজ বসছে দশম জাতীয় সংসদের অষ্টাদশ অধিবেশন
উপরে