প্রকাশ : ০১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬ ১৬:৩১:১৫
সুন্দরবনে নোনা পানির কুমির গণনার কাজ শুরু হয়েছে
বাংলাদেশ বাণী টোয়েন্টিফোর ডটকম, এস এম রাজ, বাগরেহাট জেলা প্রতিনিধি : সুন্দরবনে শুরু হয়েছে নোনা পানির কুমির গণনা। রোববার বিকালে বাগেরহাটের মংলা উপজেলার ফরস্টে ঘাট এলাকায় খুলনা র্সাকেলের বন সংরক্ষক জহির উদ্দিন আহম্মেদ আনুষ্ঠানিকভাবে এ কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন।

বিশ্ব ব্যাংকের সহায়তায় বেসরকারি বন্যপ্রাণী গবেষণা প্রতিষ্ঠান সেন্টার ফর অ্যাডভান্সড রির্সাচ ইন ন্যাচারাল রিসোর্সেস অ্যান্ড ম্যানেজমেন্ট ‘ক্যারিনাম’ কুমির গণনার এ কাজ করছে। উদ্বোধনি অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন- খুলনা অঞ্চলের বন্যপ্রাণী ও প্রকৃতি সংরক্ষণ বিভাগের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা (ডিএফও) জাহিদুল কবির, সুন্দরবন র্পূব বন বিভাগের বিভাগীয় র্কমর্কতা (ডিএফও) সাইদুল ইসলাম, পশ্চিম বিভাগের বিভাগীয় র্কমর্কতা (ডিএফও) সাইদ আলী ও ক্যারিনাম’র নির্বাহী প্রধান এস এম এ রশীদ। বন্যপ্রাণী ও প্রকৃতি সংরক্ষণ বিভাগরে (ডিএফও) জাহিদুল কবির বাংলাদেশ বাণী টোয়েন্টিফোর ডটকমকে জানান, বন বিভাগ ও ক্যারিনাম এই জরিপ কাজ শুরু করেছে।

বিশ্ব ব্যাংকের আর্থিক সহযোগিতায় চারটি দলে বিভক্ত হয়ে পুরো ফেব্র“য়ারি মাস জুড়ে চলবে এ কুমির গণনার কাজ। ১৯৮৫ সালের গণনা অনুযায়ী সুন্দরবনে দেড়শ থেকে দুইশ’ কুমির রয়েছে বলে বলা হতো। তবে ওই সংখ্যাও প্রকৃত পক্ষে বাস্তব সম্মত নয়, বলে মনে করেন তিনি। জাহিদুল কবির বলেন, ইতোর্পূবে বিক্ষিপ্ত ভাবে কুমির গণনার কিছু কাজ হলেও তা থেকে সুন্দরবনে কুমিরের সংখ্যা সম্পর্কে প্রকৃত কোনো ধারণা পাওয়া পায়নি।

বিশেষজ্ঞদের মতে উপকূলে লবণাক্ততা বৃিদ্ধ, জলবায়ু পরির্বতনসহ নানা কারণে গোটা সুন্দরবনের ওপরই এর প্রভাব পড়েছে। এরই মধ্যে দেশে বিপন্ন হয়েছে মিঠা পানির কুমির। অনান্য বন্যপ্রাণীর মতো হুমকিতে নোনা পানির কুমিরও। এই গণনা শেষে কুমিরের প্রকৃত সংখ্যা জানা গেলে, তা রক্ষায় কার্যকর পদক্ষেপ নেওয়া যাবে। সুন্দরবন পূর্ব বন বিভাগের বিভাগীয় কর্মকর্তা (ডিএফও) সাইদুল ইসলাম জানান, সুন্দরবনের কোন কোন এলাকায় কুমির বেশি অবস্থান করে, তা জেনে সংরক্ষণের উদ্দেশে এই গণনার কাজ চালানো হচ্ছে। কুমিরের বংশ বিস্তার ও জীবনযাত্রার হুমকি সনাক্ত করার পর তা মোকাবেলায় সুন্দরবন বিভাগ ব্যবস্থা নেবে।

বাংলাদেশ বাণী/কাসা/ডেস্ক/নি.প্রতি/রাজ/বাগেরহাট/০১/০২/২০১৬. ০৪:৩০ (পিএম) ঘ.    
 
সর্বশেষ সংবাদ
  • একুশের গ্রন্থমেলায় মেলায় প্রতিদিনই বই বিক্রি বাড়ছেআন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে যাতায়াতের রুটম্যাপ প্রণয়নবিশ্ব ভালবাসা দিবসে অমর একুশের গ্রন্থমেলায় দর্শনার্থীদের ঢলশেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ নির্ধারিত সময়ের আগেই উন্নত দেশে পরিণত হবে : সরকারি দলরোহিঙ্গা শরণার্থী সমস্যা নিরসনে ইইউ বাংলাদেশের প্রতি সমর্থন অব্যাহত রাখবে টাঙ্গাইলের মধুপুরে চাঞ্চল্যকর রূপা ধর্ষণ ও হত্যা মামলায় ৪ জনের ফাঁসি’র আদেশআদালতের আদেশ অনুযায়ী কারাগারে ডিভিশন পেলেন খালেদা জিয়াভারতীয় গণমাধ্যমের মন্তব্য খালেদার দণ্ড হাসিনাকে শক্তিশালী করেছেএকুশের বই মেলায় প্রাণ এসেছে : বেড়েছে বিক্রি জনগণের জানমাল রক্ষায় যতদিন প্রয়োজন ততদিনই পুলিশি নিরাপত্তা থাকবে : আইজিপি‘রায়ের কপি হাতে পেলেই হাইকোর্টে আপিল করা হবে’তারেকসহ অন্যদের ১০ বছর কারাদন্ড-জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় রায় : সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার ৫ বছর জেল ভীত হবেন না : আশ্বস্ত করছি ৮ ফেব্রুয়ারি কিছু হবে না : আইজিপি রাষ্ট্রপতি পদে এ্যাড. মো. আবদুল হামিদের পক্ষে মনোনয়নপত্র দাখিলবিএডিসি ও পিআইবি আইনের খসড়া অনুমোদন করেছে মন্ত্রিসভাবিএনপিসহ সবদল একাদশ সংসদ নির্বাচনে অংশ নেবে : সিইসি'র আশাবাদরাষ্ট্রপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনকে প্রধান বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ চূড়ান্ত করেছেনরক্তঋনে কেনা, কারো দানে নয় ! ‘অমর একুশের সিঁড়ি বেয়ে আমার বাংলা মায়ের কোল’শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশের উন্নয়ন জনগণের দোরগোড়ায় পৌছে যাচ্ছে : বাহাদুর বেপারীশুরু হলো বাংলা একাডেমিতে মাসব্যাপী অমর একুশে গ্রন্থমেলা
  • একুশের গ্রন্থমেলায় মেলায় প্রতিদিনই বই বিক্রি বাড়ছেআন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে যাতায়াতের রুটম্যাপ প্রণয়নবিশ্ব ভালবাসা দিবসে অমর একুশের গ্রন্থমেলায় দর্শনার্থীদের ঢলশেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ নির্ধারিত সময়ের আগেই উন্নত দেশে পরিণত হবে : সরকারি দলরোহিঙ্গা শরণার্থী সমস্যা নিরসনে ইইউ বাংলাদেশের প্রতি সমর্থন অব্যাহত রাখবে টাঙ্গাইলের মধুপুরে চাঞ্চল্যকর রূপা ধর্ষণ ও হত্যা মামলায় ৪ জনের ফাঁসি’র আদেশআদালতের আদেশ অনুযায়ী কারাগারে ডিভিশন পেলেন খালেদা জিয়াভারতীয় গণমাধ্যমের মন্তব্য খালেদার দণ্ড হাসিনাকে শক্তিশালী করেছেএকুশের বই মেলায় প্রাণ এসেছে : বেড়েছে বিক্রি জনগণের জানমাল রক্ষায় যতদিন প্রয়োজন ততদিনই পুলিশি নিরাপত্তা থাকবে : আইজিপি‘রায়ের কপি হাতে পেলেই হাইকোর্টে আপিল করা হবে’তারেকসহ অন্যদের ১০ বছর কারাদন্ড-জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় রায় : সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার ৫ বছর জেল ভীত হবেন না : আশ্বস্ত করছি ৮ ফেব্রুয়ারি কিছু হবে না : আইজিপি রাষ্ট্রপতি পদে এ্যাড. মো. আবদুল হামিদের পক্ষে মনোনয়নপত্র দাখিলবিএডিসি ও পিআইবি আইনের খসড়া অনুমোদন করেছে মন্ত্রিসভাবিএনপিসহ সবদল একাদশ সংসদ নির্বাচনে অংশ নেবে : সিইসি'র আশাবাদরাষ্ট্রপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনকে প্রধান বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ চূড়ান্ত করেছেনরক্তঋনে কেনা, কারো দানে নয় ! ‘অমর একুশের সিঁড়ি বেয়ে আমার বাংলা মায়ের কোল’শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশের উন্নয়ন জনগণের দোরগোড়ায় পৌছে যাচ্ছে : বাহাদুর বেপারীশুরু হলো বাংলা একাডেমিতে মাসব্যাপী অমর একুশে গ্রন্থমেলা
উপরে